হকের পিছনে ছুটে বিভ্রান্ত স্বল্প শিক্ষিত আম জনতা

আসসালামু আলাইকুম।
কাউকেই জিজ্ঞেস করা ঠিক হবে না আপনারা কেমন আছেন?
কেননা এই প্রশ্নের উত্তর দিতে গিয়ে অনেকেই মিথ্যের আশ্রয় নেয়।
ভালো আছি বা আলহামদুলিল্লাহ এই ধরনের উত্তরই দিবে।
আসল কথায় আসি।

 

হক আর বাতিল শব্দের বৈপরিত্বের যোগে সমাজে নানাবিধ সমস্যার সৃষ্টি হয়।
আহলে হাদিসের অনুসারীগণ মনে করে তারা হক,বাকী সবাই ভুল,কওমীরা বলে আহলে সন্নতী ভন্ড।
চরমোনাই জান্নাতের চাবি দিয়ে দেয়,
লা মাহজাবীরা হকের একমাত্র দাবীদার বলে মনে করে।
মাহজাবীরা সঠিক পথে আছে বলে তাদের ধারনা।
তাবলীগী ভাইয়েরা বলে একমাত্র দ্বীনি কাজেই আল্লাহর সন্তুষ্ঠি অর্জন করা যায়।

 

এভাবে বিভিন্ন দল তাদের যুক্তিতে তারাই হক,অন্যরা বাতেল।
যেহেতু ইসলাম বেশ কয়েকটা দলে বিভক্ত একটা বাদে বাকিগুলো যদি ভন্ড বা বাতিল হয়।
বাতিলের সংখ্যা বেশি থাকে না? কম?
কোনো সত্যধর্মে কি বাতিল থাকতে পারে?

 

মুসলীম নাস্তিক হওয়ার ক্ষেত্রে এ সকল বিষয় একান্তভাবে বিবেচ্য।
ইসলামের মূল কথা হলো আল্লাহ এক এখানে সবাই বিশ্বাস করি।
নবী করিম (সঃ) এর সুন্নত মানা একান্তগত কর্তব্য।

 

কুরআন সকল সমস্যার সমাধান হলেও অপব্যাখ্যাকারীদের কোন কাজে আসবে না।
এক এক দল এক এক ব্যাখ্যা দিয়ে নিজেদের হক দাবী করে। দোটানা মানুষ ঠিক মত নামাজ পড়তে পারেনা।
আমিন আস্তে বলবে না জোরে বলবে সেই চিন্তায় আল্লাহকে স্মরন করা ভুলে যায়।

হক দাবী করেন?
হক পন্থায় সকল দলকে এক করেন!
পীর ধরা লোক,তাবলীগ করলে কি সমস্যা?
মাজহাবীরা সুন্নত মানলে কি সমস্যা?
এক জন মুমীন মুসলীম চাইলে আল্লাহর সকল আদেশকে মানতে পারে,অনুসরন করতে পারে রাসূল(সঃ) এর সকল সুন্নতকে।
কেন উর্ধ্বতনগণ করতে দেয় না।
আমি সাধারন মানুষ খুব ভোগান্তিতে আছি,আছি দোটানায়।

Author Details

আল্লাহ সুবাহানা তা'য়ালার সৃষ্টি মাখলুকাতের মধ্যে অতি ক্ষুদ্র মানব আমি।আল্লাহ তা'য়ালার বিধি-বিধান মেনে চলি আর রাসূল (সঃ) এর আদর্শ অনুসরন করি। পুরো পৃথিবী একটা পরিবার,ধরে নিতে পারেন আমি আপনার পরিবারের এক জন। মুসলীম মুসলীম ভাই ভাই,আপনি মুসলীম? তাহলে আপনি আমার ভাই। অন্য ধর্মালম্বী হলে শুভাকাঙ্খী। আপনি লেখা-লেখি করেন? তাহলে আমরা সহযোদ্ধা,সহকর্মী। আপনি লিখবেন,আমি পড়বো।আমি লিখবো আপনি পড়বেন,লেখক-পাঠকের সম্পর্ক। আর কিছু জানতে হবে???

Related Posts

Leave a Reply

Comment has been close by Administrator!